বর্তমান সময়:0:00পুরো সময়কাল:6:41
0 শক্তি পয়েন্ট
ভিডিও ট্রান্সক্রিপ্ট
(প্রশান্তিময় সুর) (পাতার খচমচ শব্দ) [নেপথ্যকণ্ঠে] যখন আমরা ভৌত জগৎ পর্যবেক্ষণ করি আমরা সর্বত্র এলোমেলোভাবে ঊঠা-নামা বা অস্থিরতা খুঁজে পাই। আমরা বাস্তবিকপক্ষে এলোমেলোভাবে সংখ্যা তৈরি করতে পারি এলোমেলো ঊঠা-নামা পরিমাপ করে, যা ধ্বনি/শব্দ হিসেবে পরিচিত। যখন আমরা স্যাম্পলিং নামে পরিচিত এই শব্দ পরিমাপ করি, তখন আমরা সংখ্যা লাভ করতে পারি। [নেপথ্যকণ্ঠে] এক, দুই, তিন, চার-- [নেপথ্যকণ্ঠে] উদাহরণস্বরূপ, আমরা যদি সময়ের সাথে টিভির বিদ্যুৎ প্রবাহ স্থিরভাবে পরিমাপ করতে পারি, আমরা বাস্তবিকপক্ষে এলোমেলো ক্রম তৈরি করতে পারবো। যা প্রত্যেক সংখ্যা অনুসারে দিক পরিবর্তন হয়, আমরা এই এলোমেলো ক্রম পথ এঁকে দেখতে পারি যা একটি এলোমেলো হাঁটা হিসেবে পরিচিত। সকল মানদন্ডে প্যাটার্নের অভাব লক্ষ্য করো। ক্রমের প্রত্যেক বিন্দুতে পরবর্তী পদক্ষেপ সবসময়ই অনিশ্চিত। এলোমেলো প্রক্রিয়া অনির্ণায়ক হবে বলা যায়, যেহেতু তাদেরকে অগ্রিম ভাবে নির্ধারণ করা অসম্ভব। অন্যদিকে, যন্ত্র হল নির্ণায়ক। তাদের কার্যক্রম অনুমান করা যায় এবং পুনরাবৃত্তিমূলক। ১৯৪৬ সালে, জন ভন নিউম্যান সেনাবাহিনীর গণনায় যুক্ত ছিলেন; বিশেষত হাইড্রজেন বোমার নকশা তৈরিতে যুক্ত ছিলেন। এনিয়্যাক নামে একটি কম্পিউটার ব্যবহার করে, তিনি নিউক্লিয়ার ফিশনে যুক্ত ক্রমিক গতির আসন্ন মান পর্যায়ক্রমে হিসাব করার পরিকল্পনা করেছিলেন।